এনবি নিউজ : বাগেরহাটের পূর্ব সুন্দরবন থেকে ১৬ কেজি হরিণের মাংস, ফাঁদ ও ইঞ্জিনচালিত ট্রলারসহ দুই শিকারিকে আটক করেছে বনরক্ষীরা। রবিবার সন্ধ্যায় সুন্দরবনের শরণখোলা রেঞ্জের কচিখালী অভয়ারণ্য কেন্দ্রের আওতাধীন ডিমেরচর এলাকা থেকে আটক করা হয় দুই শিকারিকে।

তারা হলেন- বরগুনা জেলার পাথরঘাটা উপজেলার পদ্মা গ্রামের মো. ইদ্রিস আলী (৪০) ও চর লাঠিমারা গ্রামের মো. নিজাম উদ্দিন (৪৫)। আটক শিকরীদের সোমবার সকালে বাগেরহাট আদালতে পাঠালে বিচারত তাদের কারাগারে প্রেরণের নির্দেশ দেন।

সুন্দরবনের কচিখালী অভয়ারণ্য কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. আব্দুস ছবুর জানান, রবিবার সন্ধ্যায় তিনি বনরক্ষীদের নিয়ে নিয়মিত টহলকালে ডিমের চর এলাকার খালে একটি ফিশিং ট্রলার দেখতে পান। এসময় ওই ট্রলারে থাকা লোকজন বনরক্ষীদের দেখতে পেয়ে দ্রুত ট্রলার চালিয়ে বনের কিনারায় চলে যায়। একপর্যায়ে ট্রলারটি ফেলে কয়েকজন লোক লাফিয়ে বনের মধ্যে পালিয়ে যায়। পরে ট্রলার তল্লাশি করে ১৬ কেজি হরিণের মাংস ও ১৫০ ফুট হরিণ ধরা নাইলনের দড়ির ফাঁদ পাওয়া যায়। পরবর্তীতে টহলদরের বনরক্ষীরা চোরা শিকারীদের ধরতে বনে তল্লাশি অভিযান শুরু করেন। প্রায় ঘন্টাখানের তল্লাশির পর দুই শিকরাীকে ধরতে সক্ষম হন তারা। শিকারী দলের অন্য সদস্যদের আটকের চেষ্টা চলছে।

সুন্দরবনের পূর্ব বনবিভাগের শরণখোলা রেঞ্জের ফরেস্ট রেঞ্জার সুফল রায় জানান, আটক শিকারীদের নামে বন আইনে মামলা দিয়ে সোমবার সকালে বাগেরহাট আদালতে পাঠালে বিচারত তাদের কারাগারে প্রেরণের নির্দেশ দেন। উদ্ধার হওয়ার ১৬ কেজি হরিণের মাংস আদালতের নির্দেশনা অনুযায়ী মাটিচাপা দেয়া হয়েছে।

এ টি